গাজীপুরে লুণ্ঠিত মালামাল ও অস্ত্রসহ সাত ডাকাত গ্রেফতার

গাজীপুরের পূবাইলে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে দুধর্ষ ডাকাতির ঘটনার একমাস পর অস্ত্রসহ সাত ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে জিএমপি’র পূবাইল থানার পুলিশ। এসময় গ্রেফতারকৃতদের কাছ থেকে ডাকাতি করা মালামাল জব্দ করা হয়েছে। শুক্রবার পূবাইল থানার ওসি নাজমুল হক ভূঁইয়া এক প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানিয়েছেন। গ্রেফতারকৃতরা হলো- শেখ ফরিদ (৩৫), সাইফুল ইসলাম (৫২), নূরুল আমিন ওরফে নুরা (৩৫), আতিউর রহমান আপেল (৩৭), ইয়াহিয়া ওরফে ইয়াকুব (৪৮), রনি (২৮) ও স্বর্ণের দোকানি দুলাল বর্মণ। নরসিংদীসহ দেশের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদের সকলের বাড়িই নরসিংদী জেলায়। ওসি আরো জানান, গাজীপুর সিটি কপোর্রেশনের পূবাইল থানার কুদাব এলাকার হোসেন উদ্দিন পালোয়ানের বাড়িতে গত ১৮ জুলাই ভোর রাতে সশস্ত্র একদল ডাকাত পিকআপ যোগে হানা দেয়। ডাকাতরা দরজা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে। তারা বাড়ির লোকজনকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ টাকা, স্বর্ণালংকার ও মোবাইলসহ বিভিন্ন মালামাল নিয়ে যায়। এসময় ডাকাতরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে গৃহকর্তার দু’ছেলে ইফতেখার পালোয়ান (৪০) ও রাকিব পালোয়ানকে (৩৫) কুপিয়ে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা আহতকে উদ্ধার করে হাসপাতালে প্রেরণ করে। এ ঘটনায় গৃহকর্তা হোসেন পালোয়ান বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতারের জন্য পার্শ্ববর্তী নরসিংদী জেলাসহ বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালায়। অভিযানের একপর্যায়ে বৃহস্পতিবার রাতে ৭ ডাকাতকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতদের দেয়া তথ্য অনুযায়ী লুণ্ঠিত ৮ ভরি স্বর্ণ ও ডাকাতিকাজে ব্যবহৃত দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে।